অবলা জীবেরা খিদে পেলেও থেকে যায় অভুক্ত, তাই…

0

ছেলের জন্মদিনে রাস্তার দেড়শ কুকুর পেট ভরে খাইয়েছেন এই বাবা। খাবারের তালিকায় ছিল মাংস-খিচুড়ি। এমন ঘটনা ঘটে ভারতের পশ্চিম মেদিনীপুরের বেলদা থানার খাকুড়দহ এলাকার।

পেশায় ব্যবসায়ী সন্দীপ দাসের তিন বছরের ছেলে সৌনকের জন্মদিন ছিল ২৩ তারিখ শনিবার। এদিনই গোটা গ্রামের প্রায় শ’দেড়েক রাস্তার কুকুরকে ভরপেট খাইয়েছেন তিনি৷ এমন পদক্ষেপের পর সন্দীপবাবুকে সাধুবাদ জানাচ্ছেন সকলেই।

পশুপ্রেমী সন্দীপবাবু৷

পশুপ্রেমী সন্দীপবাবু৷ সংগৃহীত ছবি 

জানা যায়, ছোটবেলা থেকেই পশুপ্রেমী সন্দীপবাবু৷ পশুর প্রতি বাড়তি সহানুভূতি তার৷ নিজের বাড়ির বিভিন্ন উৎসবে অতিথিদের তালিকায় পশুপাখিদের রাখেন৷ ছেলের জন্মদিনেও তার ব্যতিক্রম হয়নি৷ শনিবার ছেলের জন্মদিনের কেক কাটার পরেই গ্রামের কিছু স্বেচ্ছাসেবীকে সঙ্গে নিয়ে বেড়িয়ে পড়েন তিনি। সন্দীপবাবুর স্ত্রী সুস্মিতা ও ছেলে শৌনকও সামিল হন এই উদ্যোগে। গভীর রাত পর্যন্ত ৪টি গ্রামে ঘুরে তারা দেড়শোর উপর কুকুরকে মাংস-খিচুড়ি খাওয়ান।

সন্দীপবাবু বলেন, ‘মানুষরা খিদে পেলে বলতে পারে, সাহায্য চাইতে পারে৷ কিন্তু অবলা জীবেরা খিদে পেলেও থেকে যায় অভুক্ত অবস্থায়৷ তাই তাদের যতটুকু পারি খাইয়ে নিজের শান্তি কুড়িয়ে নিই মাত্র৷’

Share.

Leave A Reply