চট্টগ্রাম আদালতে সাংবাদিক লাঞ্ছিত,কনস্টেবল প্রত্যাহার

0 25

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

নিজস্ব প্রতিবেদক : চট্টগ্রাম আদালত ভবন এলাকায় দুই সাংবাদিককে লাঞ্ছিত করার ঘটনায় এক পুলিশ সদস্যকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

বুধবার দুপুরে নগরীর পরীর পাহাড়ে আদালত ভবন এলাকায় ওই ঘটনার পর সাংবাদিক নেতাদের উপস্থিতিতে পুলিশ কনস্টেবল মো. ইফতে খারকে প্রত্যাহারের কথা জানান নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (প্রসিকিউশন) নির্মলেন্দু বিকাশ চক্রবর্তী।

“তদন্ত করে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে,” বলেন তিনি।

কনস্টেবল ইফতে খার নগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (প্রসিকিউশন) কাজী সাহাবুদ্দিন আহমদের গাড়ির চালক।

লাঞ্ছনার শিকার হয়েছেন দৈনিক প্রথম আলোর আলোকচিত্রী জুয়েল শীল এবং দৈনিক আজাদীর আমিনুল ইসলাম মুন্না।

ঘটনার বর্ণনা দিয়ে আমিনুল ইসলাম মুন্না বলেন, “আজ আদালতে শিবির নাসিরের মামলার রায় ঘোষণার ধার্য দিন ছিল।

“তাই ছবি তুলতে আমরা মোটর সাইকেলে নতুন আদালত ভবনের দিকে যাচ্ছিলাম। বিপরীত দিক থেকে কনস্টেবল ইফতে খার গাড়ি চালিয়ে আসছিলেন। এসময় সাইড দেওয়া নিয়ে তার সাথে কথা কাটাকাটি হয়।”
আমিনুল ইসলাম মুন্না বলেন, “এক পর্যায়ে তিনি (ইফতে খার) গাড়ি থেকে নেমে আমাদের গাড়ির গতিরোধ করেন এবং এলোপাতাড়ি কিলঘুষি মারতে থাকেন।”

এতে জুয়েল শীল শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত পান। ওই পুলিশ সদস্য তাকেও লাঞ্ছিত করেন বলে জানান মুন্না।

খবর পেয়ে চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি রিয়াজ হায়দার চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আলীর নেতৃত্বে সাংবাদিক নেতারা ঘটনাষ্তলে হাজির হন। পরে তারা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সাথে বৈঠক করেন।

বৈঠকের পরই পুলিশ কর্মকর্তা নির্মলেন্দু বিকাশ চক্রবর্তী কনস্টেবল ইফতে খারকে প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তের কথা জানান।

সিটিজিনিউজ/এইচএম 

 

 

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.