মীরসরাই বিএনপি নেতাকর্মীরা আ’লীগের অত্যাচারে ঘরছাড়া

0
32

নিজস্ব প্রতিবেদক  ::      মীরসরাই উপজেলা বিএনপি’র সংবাদ সম্মেলনে নেতৃবৃন্দ অভিযোগ করেন উপজেলা বিএনপি নেতাকর্মীরা আ’লীগের অত্যাচারে ঘরছাড়া। অদ্য বেলা ১১টায় চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সংবাদ সম্মেলনে নেতৃবৃন্দরা বলেন, দেশ ও জাতি বর্তমানে এক ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে।

মানুষের প্রত্যাশা ও প্রাপ্তিতে যোজন যোজন দূরত্ব বিদ্যমান। সাধারণ মানুষের ভাগ্য উন্নয়নের পরিবর্তে ভাগ্য বিড়ম্বনা বৃদ্ধি পেয়েছে। স্বস্থিতে নেই দেশের সকল শ্রেণী পেশার মানুষ, সর্বত্র আজ লাঞ্চনা ও বঞ্চনার করুন আর্তনাদ, মানবতা আজ ধরাশয়ী, বিচারের বানী নিভৃতে কাঁদে।

গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ আজ শুধু উপলব্ধিতে সীমাবদ্ধ। মৌলিক অধিকার ভূলুণ্ঠিত। স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব আজ বিপন্ন। দেশ ও জাতি এই শ্বাসরুদ্ধকর পরিস্থিতি থেকে পরিত্রান চায়। জাতির বহুল প্রত্যাশিত অনিবার্য্য মুক্তির আন্দোলনে জাতীয়বাদী শক্তিই একমাত্র ও দুর্জেয় অবলম্বন। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে অপ্রতিরোধ্য দুর্বার গণআন্দোলনই গণমানুষের প্রত্যাশা।

তাই আজ আমরা আবার আপনাদের আমন্ত্রণ জানিয়েছি। আপনাদের লিখনী ও প্রচারের মাধ্যমে আপনারা আমাদের বক্তব্য অেিতর মত তুল ধরে সকল শ্রেণী পেশার মানুষের মৌলিক ও সামাজিক অধিকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলনে শক্তি যোগাবে।

প্রিয় সাংবাদিক ভাইয়েরা: আমরা আজ অতীব দুঃখ ও ক্ষোভের সাথে গত ২৮ অক্টোবর শনিবার তিন তিনবারের সফল ও নন্দিত প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া রোহিঙ্গাদের সাথে ত্রাণ বিতরণের উদ্দেশ্যে সড়ক পথে কক্সবাজার যাওয়ার এ মীরসরাই উপজেলা অতিক্রম করার সময় উনার অগ্রীম বহনের ৭/৮টি গাড়ী ভাংচুর, ককটেল বোমা বিস্ফোরণে ১৫ জন নেতাকর্মী আহত হওয়ার মত নারকীয় তান্ডবে গোটা মীরশ্বরাইবাসি স্তম্ভীত।

এ জঘন্য ন্যাক্কারজনক মধ্যযুগীয় বর্বরতায় ৫ লক্ষাধিক মীরসরাইবাসি আতঙ্কিত। শুধু তাই নয়, বেগম জিয়ার আগমনের পূর্বক্ষণে সেই দিন সকাল ০৭:০০ থেকে রাত ০৮ টা পর্যন্ত মীরসরাই উপজেলা বিএনপি’র যুগ্ম আহ্বায়ক মো: আলমগীর, ৩নং জোরারগঞ্জ ইউনিয়ন যুবদল নেতা মো: মামুন, মীরসরাই, পৌরসভা, বিএনপি’র সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক কে.জেড.এম পারভেজ এর বাড়ীতে পুলিশি হামলা, বারোইয়ারহাট পৌরসভা বিএনপি’র আহ্বায়ক দিদারুল আলম মিয়াজির বাড়ীতে সন্ত্রাসী ও পুলিশী হামলা ও মীরসরাই পৌরসভার ছাত্রদল নেতা কামরুল হাসানসহ ১৫ জন নেতাকর্মীকে মারধর, গুম ইত্যাদি করে ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেছে তা মিরসরাইর রাজনৈতিক সংস্কৃতির এক কলঙ্কিত সংযোজন।

এতদ্ব্যতিত ২৭ অক্টোবর রাতে মিরসরাই উপজেলা বিএনপি’র যুগ্ম আহ্বায়ক আজিজুর রহমান চৌধুরীর ভাইকে মারধরসহ তার ঘরের আসবাবপত্র জানালার কাচ ও একটি মোটর সাইকেল ভাংচুরের মতন বর্বর কর্মকান্ড আওয়ামী চরিত্রে যে বিভৎসদাতা তা তাদের অতীতকে স্মরণ করিয়ে দেয়।

প্রিয় সাংবাদিক বন্ধুর,গণতন্ত্রের চর্চায় মতাদর্শ প্রচারনায় পারস্পরিক সহাবস্থান মিরসরাই ঐতিহ্যবাহী হলেও সাম্প্রতিকালে গভীর উদ্বেগের সাথে আমরা লক্ষ করছি গত ১ জুলাই থেকে দলের সদস্য সংগ্রহ অভিযান কেন্দ্রিক উপজেলা বিএনপি’র সদস্য সচিব চেয়ারম্যান সালাউদ্দিন সেলিমের বাড়ীতে পুলিশী তল্লাশী, ১১নং মঘাদিয়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সদস্য সংগ্রহ কর্মসূচিতে লাঠিসোটা নিয়ে নগ্ন হামলাসহ ৯ জন নেতাকর্মী গ্রেফতার যা বিভিন্ন জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত, ১০নং মিঠানালা ইউনিয়ন বিএনপি’র সাংগঠনিক সম্পাদক মফিজ উদ্দিন মেম্বার, ইকবাল হোসেন, জামাল উদ্দিন ও ফারুকসহ সকল নেতাকর্মীকে পবিত্র ঈদুল আজহার আগে পরে মারধরসহ বাড়ি ছাড়া করার কাহিনী এলাকায় প্রচার আছে।

নির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যার বিএনপি মিরসরাই এর সাবেক সাধারণ সম্পাদক বর্তমান সদস্য জনাব নরুল আমীনকে প্রশাসনিক ভাবে হেনস্তা করার লক্ষ্যে আইনী কুটকৌশল প্রয়োগ এবং দায়িত্ব থেকে সাময়িকভাবে বহিস্কারের মত নিকৃষ্ট এবং ঘৃনিত পদক্ষেপেও শাসক দল আওয়ামীলীগ একাট্রা।

সাম্প্রতিককালে শাসক দলের আক্রমণ থেকে তার বাড়ীঘরও রক্ষা পায়নি। প্রিয় সাংবাদিক বন্ধুরা বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল যে এদেশের আপামর জনগণের আশির্বাদপুষ্ট একটি ঐতিহাসিক রাজনৈতিক দল তা কার জানা নেই।

এদলের উপজেলা কার্যলয়টিও নিকট অতিতে এ আওয়ামী হায়েনার দল আদালতের নিষেধাজ্ঞা থাকা সত্ত্বেও রাতের অন্ধকারে ফরমায়েশি পুলিশি দলের বেষ্টোনিতে থেকে বুলড্রোজার দিয়ে দোতলা ভবন গুড়িয়ে দিয়েছে।

স্বাভাবিক রাজনৈতিক কর্মকান্ডে নেতকর্মীদের আলাপ চারিতায় কোথাও পাঁচ জনকে জড়ো হতে দিতে রাজি নয়। গত রমজান মাসে জাতীয়তাবাদী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংস্থা জাসাাসের একটি ইফতার মাহফিল উপজেলা হলে পূর্ব অনুমতি থাকা সত্ত্বেও প্রশাসনিক হস্তক্ষেপের মাধ্যমে বাতিল করে দেয়া হয়। একটি দলের বিভিন্ন ইস্যুতে ইউনিট ভিত্তিক কর্মসূচি প্রথা নিশ্চয় আপনাদের ধারনায় আছে।

দুঃখজনক হলেও বাস্তবতা এই যে, কর্মসূচির আগে নেতাকর্মীদের বাড়ীঘর তল্লাশী ও শারিরীক লাঞ্চনার মাধ্যমে বিরোধী দলিয় রাজনৈতিক তৎপরতা নিরন্তর বাধাগ্রস্থ হচ্ছে। এর পাশাপাশি সংবাদপত্রে এতদবিষয়ে কোন সংবাদ পরিবেশনে সাংবাদিক বন্ধুরা কি পরিমাণ বাধাগ্রস্থ হন তা আপনারা বলতে পারেন।

প্রিয় সাংবাদিক ভাইয়েরা: আমরা আপনাদের মাধ্যমে মিরসরাই এর এই করুণ ও হৃদয়বিদারক চিত্রের পাশাপাশি ক্ষোভের সাথে এটা উল্লেখ করতে চাই ২৮ অক্টোবর মিরসরাই এর ভোটার বিহীন ও তথাকথিত এমপি ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন এলাকায় সারাদিন অবস্থান করেছিলেন।

তাহলে জনাব মোশারফ হোসেন সার্বক্ষণিক পরিস্থিতি মনিটরিং করার জন্য সেই দিন মিরসরাই অবস্থান করেচিলেন বলে আমরা ধরে নিব। মিরসরাইবাসি স্বতঃত জানে ১৯৯৬ এর উপনির্বাচন ব্যতিরেকে স্বাধীন বাংলাদেশে সকল নির্বাচনে ধরাশায়ী হয়েছেন বিএনপি’র প্রার্থীর নিকট। প্রিয় সাংবাদিক ভাইয়েরা : বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল নিয়মতান্ত্রিক সুষ্ঠ গণতান্ত্রিক ধারার চর্চাকারীর একটি বৃহৎ রাজনৈতিক দল।

ষড়যন্ত্রের অন্ধকার পথ বিএনপি চিনে না; চিনতেও চায়না। ব্যাপক জনসমর্থনই এই দলের চালিকা শক্তি। তাই আমরা প্রশাসন এর নিকট এই নারকিয় পরিবেশ থেকে সমগ্র উপজেলাকে সন্ত্রাসী মুক্ত করার জন্য জোর দাবী জানাচ্ছি।

সু-স্পষ্ট ভাবে বলতে চাই দেশ নেত্রীর গাড়ীর বহরে হামলাকারীদেরকে আগামী ১৫ দিনের মধ্যে গ্রেফতার করতে হবে। সু-নির্দিষ্ট অভিযোগ ব্যতিরেকে বিএনপি নেতাকর্মী সমর্থকদের অহেতুক হয়রানি বন্ধ করতে হবে; নইলে মানব বন্ধন, প্রতিবাদ সভা, সড়ক, রেলপথ অবরোধ সহ কঠোর রাজনৈতিক কর্মসূচি ঘোষণা করতে বাধ্য হয়।
সিটিজিনিউজ/এসএ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here