প্রিয়নেতার বিদায়ে কাঁদলেন চট্টগ্রামবাসী

0 60

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

হাকিম মোল্লা:  ঐতিহাসিক লালদিঘী ময়দানে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র ও নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর নামাজে জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। জানাজায় ইমামতি করেন মাওলানা আনিসুজ্জামান।

নামাজে জানাজা অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আ.জ. ম নাছির উদ্দীন।

শুক্রবার (১৫ নভেম্বর) বাদ আসর লালদিঘী ময়দানে বাদে আসর নামাজ শেষে জানাজায় আওয়ামী লীগের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারাও অংশ নেন। পরে বন্দরনগরীর ষোলশহরের চশমা হিলে তার পারিবারিক কবরস্থানে মরদেহ দাফন করা হবে।

নামাজে জানাজার আগে সাবেক মেয়র মহিউদ্দিনের বড় ছেলে ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল উপস্থিত জানাজায় অংশ নেয়া মুসল্লিদের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘ আপনাদের প্রিয় নেতা চট্টগ্রামের প্রিয় মানুষ আজ আপনাদের ছেড়ে চলে গেছেন।আমার বাবার জন্য পুরো দেশের সকল নেতা কর্মীরা  যে ভালোবাসা দেখিয়েছেন তার জন্য আমি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।

মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেন, বাবার মৃত্যুতে বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর বোন শেখ রেহানা শোক বিবৃতি দিয়েছেন। মহামান্য রাষ্ট্রপ্রতি আমার বাবার মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন। আমি তাদের কাছেও কৃতজ্ঞ আমার বাবাকে এভাবে সম্মান দেখানোর জন্য। নওফেলের বক্তব্যের সময় অনেকেই প্রিয় নেতার বিদায় সহ্য করতে না পেরে ডুকরে ডুকরে কেঁদে ওঠেন।

এ সময় সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, বরিশাল-১ আসনের আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য আবুল হাসনাত আবদুল্লাহ, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা বিএনপির নেতা ও সাবেক এমপি জাফরুল ইসলাম চৌধুরী, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড.  ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী, বিএনপির স্থায়ী কমিটি সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভূমি প্রতিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ, সংসদ সদস্য ডা. আফসারুল আমীন, নজরুল ইসলাম চৌধুরী, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এম এ ছালাম, সিডিএ চেয়ারম্যান আবদুচ ছালাম, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমদ, সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নুরুল আলম চৌধুরীসহ আরও অনেকে জানাজায় অংশ নেন।

জানাজায় লাখো মানুষের ভিড়ে লালদিঘী ময়দদান ছাড়িয়ে আশপাশের বিভিন্ন এলাকাতেও ছড়িয়ে পড়ে।

জানাজার আগে প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা মহিউদ্দিনের মরদেহে গার্ড অব অনার দেওয়া হয়। পরে পুলিশ ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তার মরদেহে শ্রদ্ধা জানানো হয়।

এর আগে দুপুরে মহিউদ্দিন চৌধুরীর মরদেহে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে তার দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনের স্মৃতিময় স্থান নগরীর দারুল ফজল মার্কেটের দলীয় কার্যালয়ের সামনে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রাণের নেতা মহিউদ্দিনকে শেষ শ্রদ্ধা জানান চট্টগ্রামবাসী।

মহিউদ্দিন চৌধুরীর বড় ছেলে ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল সাংবাদিকদের জানান, বাবার কবরের পাশেই চট্টগ্রামের জনমানুষের নেতা মহিউদ্দিন চৌধুরীকে সমাহিত করা হবে।

সিটিজিনিউজ/এইচএম 

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.