হারের পথে রিয়াল মাদ্রিদ

0
10

ক্রীড়া ডেস্ক  ::     নিষেধাজ্ঞার কারণে লা লিগার শুরুর কয়েকটি ম্যাচ খেলতে পারেননি দলের প্রধান তারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। তাঁর অনুপস্থিতিতে শুরুতেই ধাক্কা খেয়েছিল রিয়াল মাদ্রিদ। প্রথম পাঁচটি ম্যাচের মধ্যে ড্র করেছিল দুটিতে। হেরেছিল একটি ম্যাচে।

শুরুর সেই ধাক্কা এখনো সামলে নিতে পারেনি রিয়াল। ফলে মাঝেমধ্যেই ড্র বা হারের হতাশা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হচ্ছে জিনেদিন জিদানের শিষ্যদের। লা লিগায় নিজেদের সর্বশেষ ম্যাচেও সেল্টা ভিগোর বিপক্ষে ড্র করে পয়েন্ট ভাগাভাগি করেছে রিয়াল।

বেশ খানিকটাই পিছিয়ে গেছে শিরোপা জয়ের লড়াই থেকে। নতুন বছরে এটাই ছিল লা লিগায় রিয়ালের প্রথম ম্যাচ। ২০১৭ সালের শেষ ম্যাচটাও তারা ৩-০ গোলে হেরেছিল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনার বিপক্ষে। ফলে টানা দুটি ম্যাচে হার আর ড্রয়ের পর বেশ টালমাটাল অবস্থার মধ্যেই পড়েছে সান্তিয়াগো বার্নাব্যু। রোববার সেল্টা ভিগোর মাঠে খেলতে গিয়ে হারের আশঙ্কাও ভর করেছিল রিয়াল শিবিরে।

দ্বিতীয়ার্ধে ৭২ মিনিটের মাথায় প্রতিপক্ষের একটি পেনাল্টি দারুণ দক্ষতায় রুখে দিয়েছিলেন রিয়ালের গোলরক্ষক কেইলর নাভাস। এটি না হলে হয়তো হার নিয়েই মাঠ ছাড়তে হতো রিয়ালকে। নিজেদের মাঠে প্রথমার্ধেই এগিয়ে গিয়েছিল সেল্টা ভিগো।

৩৩ মিনিটের মাথায় রিয়ালের জালে বল জড়িয়ে দিয়েছিলেন ড্যানিয়েল ওয়াস। তবে এরপর দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়ায় রিয়াল। ৩৬ ও ৩৮ মিনিটে পরপর দুটি গোল করে দলকে এগিয়ে দেন গ্যারেথ বেল।

রিয়াল প্রথমার্ধও শেষ করেছিল ২-১ গোলে এগিয়ে থেকে। তবে দ্বিতীয়ার্ধের ৮২ মিনিটে নাটকীয়ভাবে গোল করে রিয়াল সমর্থকদের হতাশায় ডুবিয়েছেন ম্যাক্সিমিলানো গোমেজ।

রিয়ালকে মাঠ ছাড়তে হয়েছে ২-২ গোলে ড্র করে। লা লিগার অপর ম্যাচে লেভান্তের বিপক্ষে ৩-০ গোলের জয় পেয়েছে বার্সেলোনা। এই জয় দিয়ে লা লিগার শীর্ষস্থানটা ভালোমতো নিজেদের দখলে নিয়েছে বার্সা। ১৮ ম্যাচ শেষে ৪৮ পয়েন্ট নিয়ে তারা আছে সবার ওপরে।

দ্বিতীয় স্থানে থাকা আতলেতিকো মাদ্রিদের সঙ্গে তাদের পয়েন্ট ব্যবধানটাও অনেক, ৯ পয়েন্ট। ১৮ ম্যাচ খেলে ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে আতলেতিকো। তাদের নগর প্রতিদ্বন্দ্বী আর বার্সার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ আছে আরো পেছনে।

৩২ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে চলে যেতে হয়েছে রিয়ালকে। তারা অবশ্য বার্সা-আতলেতিকোর চেয়ে একটি ম্যাচ কম খেলেছে। আর ৩৭ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে আছে ভ্যালেন্সিয়া।

সিটিজিনিউজ / এসএ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here