টিকা কেন্দ্রে নিবন্ধনের সুবিধা আর থাকছে না

49
 স্বাস্থ্য ডেস্ক : |  শুক্রবার, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২১ |  ১২:০৪ অপরাহ্ণ

করোনার টিকা নিতে আগ্রহীদের ভিড় বাড়ছে। কোটা শেষ হওয়ায় টিকার স্পট নিবন্ধন বন্ধ করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এতে বিপাকে পড়েন বয়স্ক নাগরিকসহ অন্যরা। এদিকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানিয়েছেন, যেসব প্রতিষ্ঠানের কােটা পূরণ হয়েছে, যাচাই-বাছাইয়ের পর তা বাড়ানো হতে পারে। তবে এখন থেকে আর কোথাও স্পট নিবন্ধনের সুবিধা থাকবে না।

গুলশানের বাসিন্দা ষাটোর্দ্ধ দিলরুবা বানু এসেছেন বিএসএমএমইউয়ের টিকাদান কেন্দ্রে। তবে আগে নিবন্ধন করেননি। প্রায় ৪০ মিনিট অপেক্ষার পরও ঢুকতে পারেননি ভেতরে। নিবন্ধনও করতে পারেননি।

Advertisement

দিলরুবা বানু একা নন, আরো কয়েকজন জানালেন টিকা না দিতে পারার কষ্টের কথা।

তবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিচালক জানালেন, প্রতিদিন ১২০০ মানুষের টিকা দেওয়ার সক্ষমতা থাকলেও গতকাল ও পরশু এ কেন্দ্রে টিকা নিয়েছেন যথাক্রমে ১৮৩৪ ও ১৪৯৭ জন।

বিএসএমএমইউ’র পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জুলফিকার আহমেদ আমিন জানান, এখন থেকে সুরক্ষা এ্যাপে যারা নিবন্ধন করেছেন, শুধু তারাই বিএসএমএমইউতে টিকা নিতে পারবেন। বরাদ্দকৃত ২০ হাজার টিকার নিবন্ধন সম্পন্ন হওয়ায় আর স্পট নিবন্ধন নিতে পারছেন না। তবে বিষয়টি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও অধিদফতরকে জানানো হয়েছে।

এদিকে পরিবার পরিকল্পনার একটি অনুষ্ঠানে গণমাধ্যমকর্মীদের প্রশ্নের উত্তরে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানান, এখন থেকে আর কোথাও স্পট নিবন্ধনের মাধ্যমে টিকা দেয়া হবে না। তবে বিএসএমএমইউসহ অন্যান্য যেসব প্র্রতিষ্ঠানের টিকার জন্য ইতিমধ্যে নিবন্ধন শেষ হয়েছে সেসব প্রতিষ্ঠানে আরও টিকা দেওয়া যায় কি না, সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

গত ৭ ফেব্রুয়ারি টিকা কর্মসূচির প্রথম দিনে বঙ্গবন্ধুু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ৫৬০ জন টিকা নিলেও বৃহস্পতিবার নিয়েছেন ১৪৫৭ জন।

Advertisement