‘বল ঘুরলেই সবার কান্নাকাটি শুরু হয়ে যায়’

62
 স্পোর্টস ডেস্ক: |  রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২১ |  ১:৪২ অপরাহ্ণ

অনেক রেকর্ডের জন্ম দিয়ে মাত্র দুই দিনে শেষ হয়ে গেছে ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যকার সিরিজের তৃতীয় টেস্ট। বিশ্বের সবচেয়ে ক্রিকেট স্টেডিয়ামে হওয়া দিবারাত্রির ম্যাচটি, রেকর্ডের পাশাপাশি জন্ম দিয়েছে অনেক আলোচনার। যার পুরোটা জুড়েই একটি বিষয়, আহমেদাবাদের পিচ!

গোলাপি বলে হওয়া ম্যাচটির দ্বিতীয় ইনিংসে দুই দলের একজন পেসারও হাত ঘোরানোর সুযোগ পাননি। সবমিলিয়ে যে ৩০ উইকেটের পতন ঘটেছে ম্যাচে, তার মধ্যে ২৭টিই গেছে স্পিনারদের ঝুলিতে। ব্যাটসম্যানদের ওপর ছড়ি ঘুরিয়েছেন অক্ষর প্যাটেল, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, জো রুট, জ্যাক লিচরা।

Advertisement

আর এ বিষয়টিই যেন মানতে পারছে না ক্রিকেট বিশ্ব। বিশেষ করে, ইংল্যান্ডের সাবেক ক্রিকেটার মাইকেল ভন, অ্যালিস্টার কুক, ডেভিড লয়েড, অ্যান্ড্রু স্ট্রাউসরা রীতিমতো ধুয়ে দিয়েছেন তৃতীয় ম্যাচের পিচকে। অন্যদিকে ভারতের ক্রিকেটাররা আবার যুক্তি দিয়েছেন স্পিনিং পিচের পক্ষেই।

এবার এ আলোচনায় যোগ দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার অফস্পিনার নাথান লিয়ন। তিনিও ভোট দিয়েছেন ভারতের স্পিনবান্ধব উইকেটের পক্ষে। বিশ্বের অন্যান্য দেশে পেসবান্ধব উইকেট হতে পারলে, স্পিন সহায়ক উইকেট কেন বানানো যাবে না, তাই বুঝতে পারছেন লিয়ন।

জনপ্রিয় বার্তাসংস্থা এএফপিকে লিয়ন বলেছেন, ‘আমরা বিশ্বজুড়ে সিমিং (পেসবান্ধব) উইকেটে খেলি, তখন ৪৭, ৬০ রানে অলআউট হই। তখন কেউ কিছু বলে না। কিন্তু যখনই উইকেট বল ঘুরতে থাকে, তখন সবার কান্নাকাটি শুরু হয়ে যায়।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমি এই আলোচনার অর্থই বুঝি না। আমি এমন উইকেটের পক্ষে আছি। এটা যথেষ্ঠ বিনোদনদায়ী ছিল। এই ম্যাচ দেখার জন্য রাত জেগেছি। সত্যিই দারুণ ছিল। আমি তো ভাবছি, এই ম্যাচের কিউরেটরদের সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে নিয়ে আসি।’

এন-কে

Advertisement