ঘোলা পানিতেও মাছ শিকার ! ফ্রুটিকায় ইয়াবা..

0 60

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

ছবি-আকমল হোসেন।

নিজস্ব প্রতিবেদক:  বুঝার উপায় নেই ফ্রুটিকা জুসের বোতলের মধ্যে ইয়াবা।তবে এটি জানার জন্য চাই ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করার মত দক্ষতা। সেই দক্ষতারই প্রমাণ দিয়েছে চট্টগ্রাম মহানগরীর গোয়েন্দা পুলিশের একটি আভিযানিক দল। তল্লাশি চালিয়ে ৫ হাজার পিস ইয়াবাসহ দুই ইয়াবা পাচারকারীকেও তারা আটক করতে সক্ষম হয়েছেন।

আটক দুজন হলেন কিশোরগঞ্জের মো.সাগর (২৭) এবং গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ার রহুল আমিন শেখ (২৪)।

শনিবার (৩০ ডিসেম্বর) ভোর ৪টার দিকে নগরীর শাহ আমানত সেতুর টোল প্লাজা এলাকায় এনা পরিবহনের একটি বাসে অভিযান চালিয়ে দুটি ফ্রুটিকার বোতলসহ তাদের আটক করে পুলিশ।

নগর গোয়েন্দা পুলিশের সহকারী কমিশনার (এসি-পশ্চিম) মঈনুল ইসলাম  বলেন, ফ্রুটিকার বোতল থেকে কিছু পানীয় ফেলে দিয়ে সেখানে পলিথিনে মোড়ানো ইয়াবা ঢোকানো হয়েছিল। এরপর আবারও পানীয় দিয়ে বোতলের ছিপিটি মাস্টার গাম দিয়ে ভালোভাবে সেঁটে দেওয়া হয়। দেখে বোঝার কোন উপায় নেই, সেটি ফ্রুটিকার বোতল নাকি অন্যকিছু।এক প্রকার ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের মত ঠিক মাছ শিকার করে বসি আমরা।

‘ফ্রুটিকার বোতলগুলো আটক দুইজন বাসের সামনের সিটের ঝুড়িতে রেখেছিল। সাধারণত যাত্রীরা যেভাবে মিনারেল ওয়াটারের বোতল নিজের সামনে রাখে সেভাবেই।  তল্লাশি চালানোর সময় দেখি  ফ্রুটিকার বোতলগুলো  খুব শক্ত। সেগুলো নাড়াচাড়া করে ভেতরে পানীয় ছাড়াও অন্যকিছু আছে বলে নিশ্চিত হই। খোলার পর সেগুলোতে ইয়াবা পাওয়া গেছে। ’

দুজন কক্সবাজারের টেকনাফ থেকে ইয়াবাগুলো নিয়ে ঢাকার দিচ্ছে যাচ্ছিলেন বলে জানিয়েছেন এসি মঈনুল।

এ ব্যাপারে  মামলা দায়েরের  প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানিয়েছেন তিঁনি।

সিটিজিনিউজ/এইচএম 

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.